WHAT'S NEW?
Loading...

শীতে সতেজ থাকুন

                                                            



প্রিয় ক্রিকেট ডটকমঃ চলছে শীতকাল । এই সময়ে  কুয়াশা আর শৈত্যপ্রবাহের কারণে শরীরের উপর বিভিন্ন নেতিবাচক প্রভাব পড়ে। শীতকালে অনেক সময় অসতর্কতায় শরীরে বিভিন্ন মৌসুমী রোগব্যাধিও বাসা বাঁধতে পারে।তাই শীতে শরীরকে সতেজ ও সক্রিয় রাখতে  কিছু বিষয় জেনে নেয়া জরুরি। আসুন শীতে শরীরকে সতেজ রাখতে কি করবেন তার একটি ফর্মুলা জেনে নিই (তথ্যসূত্র: প্রিয় ডটকম)।


প্রচুর পানি পান করুন 


শুধু গরমকালে নয় শীতের সময়েও নিয়মিত পর্যাপ্ত পরিমাণে পানি পান করুন। বিশেষজ্ঞরা বলেন শীতে শরীরকে রোগমুক্ত ও সতেজ রাখতে প্রচুর পরিমাণে পানি পান করা উচিত। তাছাড়া বিশেষজ্ঞরা বলেন শীতকালে শরীরে পানির ঘাটতি হলে বিভিন্ন মৌসুমী রোগব্যাধি শরীরে বাসা বাঁধতে পারে।তাই শীতের এই সময়ে নিয়মিত প্রচুর পরিমাণে পানি পান করা জরুরি।


ব্যয়াম করুন 


শীতে বিশেষত বয়স্কদের শরীরের বিভিন্ন পুরনো রোগ যেমন বাতের ব্যথা,হাড়ের রোগ ইত্যাদি বেড়ে যায়।আর শীতে এসব সমস্যা ও শরীরের জড়তা কাটাতে ব্যয়াম এক চমৎকার রিমেডি হতে পারে। বিশেষজ্ঞরা বলেন ব্যয়াম সারাবছরই করা উচিত এবং শীতে শরীরকে সতেজ ও সক্রিয় রাখার জন্য ব্যয়াম বেশি জরুরি। এক্ষেত্রে শীতে নিয়মিত কিছু সময় খেলাধুলা করতে পারেন বা দৌড়াতে পারেন।



বিছানা ছাড়ুন ধীরে 


গরমকালের চেয়ে শীতকালে রাত কিছুটা দীর্ঘ হয়।আর এরফলে শীতকালে বিছানা ছাড়তে কিছুটা বিলম্ব হয় এবং  দীর্ঘ সময় শুয়ে থাকার কারণে শরীরের মাংসপেশীর কর্মক্ষমতা মন্থর হয়ে যায়।আর তাই শীতে বিছানা ছাড়ার সময় শরীরকে ধীরে ধীরে নেড়ে শরীরের মাংসপেশীকে সক্রিয় করে তারপর বিছানা ছাড়ুন। শীতে ঘুম ভাঙ্গার পর ধরমড়িয়ে  বিছানা ছাড়া উচিত নয় কারণ এরফলে মাংসপেশীতে বিভিন্ন সমস্যা হতে পারে যা শরীরে অস্বস্থি তৈরি করতে পারে।তাই বিশেষজ্ঞরা বলেন শীতের সময় ধীরে ধীরে শরীরকে সক্রিয় করে তারপর বিছানা ছাড়ুন।


নিয়মিত ভিটামিন সি যুক্ত খাবার খান 


শীতকালে শরীরে বিভিন্ন মৌসুমী রোগব্যাধি বাসা বাঁধতে পারে আর এসব থেকে মুক্তি পেতে এই সময়ে প্রচুর পরিমাণে ভিটামিন সি যুক্ত খাবার খেতে হবে। শীতকালে ভিটামিন সি যুক্ত বিভিন্ন শাকসবজি ও ফলমূল পাওয়া যায় যা নিয়মিত খেতে হবে। শীতকালে ঠান্ডাজনিত রোগব্যাধি সারাতে ভিটামিন সি যুক্ত খাবার খুবই উপকারী। ভিটামিন সি ঠান্ডাজনিত বিভিন্ন সমস্যা সারাতে সহায়তা করে।


পুষ্টিকর খাবার খেতে হবে 


শীতকালে শরীরকে সতেজ ও সবল রাখতে পুষ্টিকর খাবার খেতে হবে। এক্ষেত্রে শীতকালে নিয়মিত সবুজ শাকসবজি ও ফলমূল খেতে পারেন। শীতে বাজারে বিভিন্ন ধরণের শাকসবজি ও ফলমূল সহজলভ্য হয় । যেমন কমলালেবু,টমেটো,গাজর ইত্যাদি এই সময়ে প্রচুর পরিমাণে পাওয়া যায়। শীতে শরীরকে সতেজ ও সক্রিয় রাখতে নিয়মিত পুষ্টিকর খাবার যেমন মৌসুমী ফল ও শাকসবজি খেতে হবে।


স্ট্রেসকে দূরে রাখুন 


বিশেষজ্ঞরা বলেন শীতকালে শরীরের জন্য ক্ষতিকর একটি সমস্যা হচ্ছে স্ট্রেস । অতিরিক্ত স্ট্রেস থেকে শরীরের সতেজতা কমে যেতে পারে।তাই শীতে শরীরকে সতেজ ও রোগমুক্ত রাখতে হলে স্ট্রেসকে দূরে রাখার চেষ্টা করতে হবে। বিশেষজ্ঞরা বলেন শীতে সুস্থ থাকতে হলে সবধরণের স্ট্রেস বা চাপকে এড়িয়ে চলতে হবে।কারণ স্ট্রেস শরীরের রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা কমিয়ে দেয় ফলে সহজেই শরীরে জ্বর প্রভৃতি রোগ হানা দেয়।


পরিমিত ঘুম জরুরি 


শীতে সতেজ থাকতে চাই পরিমিত ঘুম। বিশেষজ্ঞরা বলেন শীতে সুস্থ ও সবল থাকার জন্য পরিমিত ঘুম খুবই জরুরি।কারণ শীতে পরিমিত ঘুম নাহলে হজমে সমস্যা ,আলস্য ইত্যাদি বেড়ে যায়। এছাড়া পরিমিত ঘুম নাহলে শীতে উচ্চরক্তচাপসহ বিভিন্ন শারীরিক সমস্যা দেখা দিতে পারে।


খাওয়ার আগে সাবান দিয়ে হাত পরিস্কার করুন 


করোনা মহামারীর এই সময়ে শীতে সুস্থ থাকতে চাইলে যেকোন কিছু খাওয়ার আগে ভালো করে সাবান দিয়ে হাত ধুয়ে নিতে হবে।কারণ বিশেষজ্ঞরা বলেন আমাদের শরীরে ভাইরাস, ব্যাকটেরিয়া সবচেয়ে বেশি প্রবেশ করে হাতের মাধ্যমে।তাই খাওয়ার আগে ভালো করে সাবান দিয়ে হাত ধুতে ভুলবেন না।


শীতে চিনিযুক্ত খাবার কম খান 


বিশেষজ্ঞরা বলেন শীতে শরীরকে সতেজ ও সক্রিয় রাখতে চিনিযুক্ত খাবার কম খেতে হবে।কারণ চিনিযুক্ত খাবার বেশি খেলে এই সময়ে শরীরের ওজন বৃদ্ধির পাশাপাশি বিভিন্ন জটিল রোগের প্রাদুর্ভাব বেড়ে যেতে পারে।তাই শীতে ফিট থাকার জন্য যথাসম্ভব চিনিযুক্ত খাবার এড়িয়ে চলুন।


মাস্ক ও যথাযথ শীতপোশাক ব্যবহার করুন 


শীতে করোনা ও বিভিন্ন মৌসুমী রোগব্যাধি থেকে নিজেকে সুরক্ষিত রাখার জন্য বাইরে বেরোলে মাস্ক ও যথাযথ শীতপোশাক  ব্যবহার করুন ।এই সময়ে শরীরে ঠান্ডা প্রবেশ করলে মৌসুমী সর্দিকাশির প্রভাবে পুরো শীত মাটি হয়ে যেতে পারে।