WHAT'S NEW?
Loading...

টেস্ট ক্রিকেট থেকে ডুপ্লেসিসের বিদায়

                                                                     


প্রিয় ক্রিকেট ডটকমঃ বর্তমানে বিশ্বের সেরা ব্যাটসম্যানদের অন্যতম দক্ষিণ আফ্রিকার ফাফ ডুপ্লেসিস। অসাধারণ টেকনিক ও স্টাইলের জন্য ক্রিকেটামুদীদের কাছে খুবই জনপ্রিয় এই ব্যাটসম্যান। তাছাড়া তিন ফরম্যাটে সমানভাবে কার্যকর হিসেবে নিজেকে প্রতিষ্ঠা করেছেন এই ব্যাটসম্যান।এর প্রমাণ হিসেবে বিশ্বের সবলিগে ডুপ্লেসিসের অংশগ্রহণ এবং দুর্দান্ত ব্যাটিংয়ের কথা বলা যায়।তবে তাঁর ভক্তদের জন্য একটি  দুুঃসংবাদ হচ্ছে এই দক্ষিণ আফ্রিকান ব্যাটসম্যান সম্প্রতি টেস্ট ক্রিকেট থেকে বিদায় নেয়ার কথা জানিয়েছেন। অর্থাৎ ফাফ ডুপ্লেসিসকে আর টেষ্ট ক্রিকেটে দেখা যাবে না।ডুপ্লেসিস টেস্ট ক্রিকেট থেকে নিজের বিদায়ের কারণ হিসেবে পরবর্তী দুটি টিটুয়েন্টি বিশ্বকাপ খেলা এবং ওয়ানডে ক্রিকেটে আরো মনোযোগী হওয়ার কথা বলেন। উল্লেখ্য করোনার কারণে আগামী দুই বছরে দুটি টিটুয়েন্টি বিশ্বকাপ আয়োজন করবে আইসিসি।(তথ্যসূএ:বিডিক্রিকটাইম)

ডুপ্লেসিসের ব্যাটিংয়ের গল্প

এই সময়ের ক্রিকেটে স্টাইলিশ ব্যাটসম্যান হিসেবে ডুপ্লেসিসের নাম বলতেই হয়।এই সময়ের ক্রিকেটে যাদের ব্যাটিং চোখের জন্য অন্যরকম আনন্দ নিয়ে আসে ফাফ ডুপ্লেসিস তাদের অন্যতম। চমৎকার টেকনিক এবং কুল ক্রিকেটের জন্য ডুপ্লেসিসের প্রশংসা করতেই হয়।ডুপ্লেসিসের ব্যাটিংয়ের যে দিকটি সবচেয়ে বেশি আনন্দদায়ক তা হচ্ছে তাঁর চমৎকার বডিল্যাঙ্গুয়েজ এবং সেই সাথে সময়োপযোগী ব্যাটিংয়ের দক্ষতা। এসবের বাইরে উইকেটে সেট হলে আধিপত্য বিস্তার করে খেলার দারুণ মুন্সিয়ানা দেখা যায় এই দক্ষিণ আফ্রিকান ব্যাটিং লিজেন্ডের মধ্যে।হোক ন্যাশনাল টিমের খেলা কিংবা কোন ফ্রাঞ্চাইজি ক্রিকেট সবক্ষেত্রে ডুপ্লেসিসের ব্যাটিংয়ে একধরণের নিজস্বতা দেখা যায়।

কুল ও ক্যালকুলেটেড ক্রিকেটে দক্ষতা

এই সময়ের ক্রিকেটে ঠান্ডামাথায় যেকোন প্রতিপক্ষকে তুলোধুনো করার প্রসঙ্গ এলে কিয়েরন পোলার্ড,থিসারা পেরেরা,হ্নাদিক পান্ডিয়াদের সাথে ডুপ্লেসিসের নামটিও আসবেই।হোক দক্ষিণ আফ্রিকার হয়ে মাঠে নামা কিংবা আইপিএল,বিগব্যাশের ধুন্ধুমার লড়াই সবক্ষেত্রেই ডুপ্লেসিস কুল ও ক্যালকুলেটেড ক্রিকেটের জন্য বিখ্যাত। চমৎকার শটসিলেকশন, দারুণ রানিং বিটুইন দ্য উইকেট এবং বিগশট-গ্যাপশটে সমান দক্ষতা এসবকিছুর মিশেলে ডুপ্লেসিসের ব্যাটিংয়ে এক ভিন্ন আমেজ ফুটে উঠে। একধরণের আভিজাত্য বজায় রেখে ব্যাটিংয়ের কৌশল ডুপ্লেসিসের মধ্যে দেখা যায়। এবং সবকিছু মিলিয়ে ডুপ্লেসিসের ব্যাটিংয়ে একটি বিশেষ মেজাজ ফুটে উঠে।।

দুর্দান্ত এক ফিনিশার

এ সময়ের ক্রিকেটব্যাটিংয়ে সফল  ফিনিশারদের মধ্যে ডুপ্লেসিসের নামটি রাখতে হবে।হোক ন্যাশনাল টিমের খেলা কিংবা আইপিএল প্রভৃতি ফ্রাঞ্চাইজি ক্রিকেট সবক্ষেত্রেই  ডুপ্লেসিস দ্রুততম সময়ে উইকেটে সেট হয়ে ম্যাচকে নিয়ন্ত্রণ করার আশ্চর্য ক্ষমতা রাখেন।ডুপ্লেসিস আসার পর দক্ষিণ আফ্রিকার টপঅর্ডারে  দারুণ পরিবর্তন ঘটে। এসময়ের ক্রিকেটে একাই ম্যাচকে নিয়ন্ত্রণ করার ক্ষমতা খুব কম ব্যাটসম্যানের মধ্যে দেখা যায় এক্ষেত্রে বিরাট কোহলি,স্টিভেন স্মিথ, রোহিত শর্মা, সাকিব আল হাসান , ডুপ্লেসিসের কথা বিশেষভাবে বলতে হয়।

সব ফ্রাঞ্চাইজি লিগেই জনপ্রিয়

বিশ্বের সব ক্রিকেট লিগেই ডুপ্লেসিস অটোমেটিক চয়েছ হিসেবে পরিচিত।আর এক্ষেত্রে সবধরণের উইকেটে এই ব্যাটসম্যানের অসাধারণব্যাটিং দক্ষতাকে বিশেষভাবে বিবেচনা করা হয়। এসবের সাথে নিখুঁত শটসিলেকশন এবং শটকে সার্থকভাবে এক্সিকিউট করার আশ্চর্য এক ক্ষমতা রয়েছে এই দক্ষিণ আফ্রিকান ব্যাটসম্যানের ব্যাটিংয়ে।গত আইপিএলে চেন্নাই সুপার কিংসের হয়ে প্রায় একাই তাঁর দুর্দান্ত ব্যাটিং নিশ্চয় অনেকের মনে থাকবে। উল্লেখযোগ্য তথ্য হচ্ছে তুমুল প্রতিদ্বন্দ্বিতাপূর্ণ আইপিএলে সবচেয়ে সফল বিদেশি ব্যাটসম্যানের একজন ডুপ্লেসিস। আইপিএলের ইতিহাসে সফল বিদেশি ব্যাটসম্যানদের মধ্যে ডুপ্লেসিস অন্যতম।

তবু কিছু ব্যর্থতা-সমালোচনা

যদিও ডুপ্লেসিস এসময়ের ক্রিকেটের এক সুপারম্যান  হিসেবে পরিচিত তবু কিছু ব্যর্থতা , অভিযোগ নিজের ইতিহাসের সাথে যুক্ত করে নিয়েছেন এই দক্ষিণ আফ্রিকান ব্যাটিং লিজেন্ড।গত ওয়ানডে বিশ্বকাপে তাঁর অধীনে দক্ষিণ আফ্রিকার শোচনীয় পারফরম্যান্সের জন্য অধিনায়ক হিসেবে ডুপ্লেসিসের ব্যর্থতাকে দায়ী করা হয়। এমনকি গত বিশ্বকাপে না খেলা স্বদেশি ডিভিলিয়ার্সের সাথে তাঁর দ্বন্দ্বের খবর প্রকাশিত হলে  ডুপ্লেসিস ব্যাপকভাবে সমালোচিত হন ।

ডুপ্লেসিসের ক্যারিয়ারের গুরুত্বপূর্ণ কিছু তথ্য

এ সময়ের জনপ্রিয় ক্রিকেটারদের একজন ফাফ ডুপ্লেসিস।ফাফ ডুপ্লেসিসের ক্যারিয়ার সম্পর্কে গুরুত্বপূর্ণ কিছু তথ্য এখানে তুলে ধরছি। 

টেস্ট অভিষেকে সেঞ্চুরি

ফাফ ডুপ্লেসিসের টেস্টে অভিষেক হয় ২০১২ সালে অষ্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে। এবং সেই অভিষেক টেস্টে এই দক্ষিণ আফ্রিকান ব্যাটসম্যান ১১০ রান করেন। দক্ষিণ আফ্রিকার চতুর্থ ব্যাটসম্যান হিসেবে ফাফ ডুপ্লেসিস অভিষেক টেস্টে সেঞ্চুরির কীর্তি গড়েন। অভিষেক টেস্টে ডুপ্লেসিসের শতকটি ক্রিকেট বোদ্ধাদের নজর কেড়েছিল।এরপর ডুপ্লেসিস আরো ৯টি টেস্ট শতক হাঁকান।

অধিনায়ক হিসেবে তিনফরম্যাটে সেঞ্চুরি

শ্রীলঙ্কার সাবেক অধিনায়ক তিলকেরত্নে দিলশানের পর ডুপ্লেসিস দ্বিতীয় ক্রিকেটার যিনি অধিনায়ক হিসেবে ক্রিকেটের তিন ফরম্যাটে সেঞ্চুরি করেছেন।


একই মাঠে তিন ফরম্যাটে সেঞ্চুরি

ফাফ ডুপ্লেসিস সেই বিরল ব্যাটসম্যান যিনি একই মাঠে ক্রিকেটের তিন ফরম্যাটে সেঞ্চুরি করেছেন।

 আইপিএলে দ্রুততম দুই হাজার রান


আইপিএলে বরাবরই জনপ্রিয় এক ব্যাটসম্যান ফাফ ডুপ্লেসিস। আইপিএলে তাঁর বেশকিছু রেকর্ড রয়েছে। আইপিএলে ডুপ্লেসিসের অন্যতম এক রেকর্ড হলো ফাফ ডুপ্লেসিস আইপিএলে চতুর্থ বিদেশি ব্যাটসম্যান হিসেবে দ্রুততম সময়ে ২ হাজার রানের মাইলফলক স্পর্শ করেন।এই দক্ষিণ আফ্রিকান ব্যাটসম্যান আইপিএলে মাএ ৬৭ইনিংস খেলে ২ হাজার স্পর্শ করেন।

বল টেম্পারিং করে সমালোচিত

ক্রিকেটের মাঠে চমৎকার সব ইনিংস খেলে সুনাম কুড়ানোর পাশাপাশি ডুপ্লেসিসের নামের পাশে কিছু কলংকও  যুক্ত হয়েছে।বল টেম্পারিংয়ের অভিযোগে ডুপ্লেসিস দু'বার অভিযুক্ত হন ।২০১৩সালে পাকিস্তানের বিপক্ষে বল টেম্পারিংয়ের অপরাধে ডুপ্লেসিস অভিযুক্ত হন ।পরবর্তীতে ২০১৬সালে আবারো অষ্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে বল টেম্পারিং করে অভিযুক্ত হন।

ডুপ্লেসিসের ক্রিকেট ক্যারিয়ার

আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে ২০১১সালে ভারতের বিপক্ষে ওয়ানডে ম্যাচ দিয়ে ডুপ্লেসিসের অভিষেক হয়। টেস্ট অভিষেক ২০১২সালে এবং টিটুয়েন্টি অভিষেকও ২০১২সালে।

টেস্ট ক্যারিয়ার- ৬৯টেষ্ট-৪,১৬৩রান-সেঞ্চুরি(১০)/হাফসেঞ্চুরি (২১)

ওয়ানডে ক্যারিয়ার-১৪৩ ওয়ানডে-৫,৫০৭ রান-সেঞ্চুরি(১২)/হাফসেঞ্চুরি (৩৫)

টিটুয়েন্টি ক্যারিয়ার-৫০ টিটুয়েন্টি- ১,৫২৮রান-সেঞ্চুরি(১)/হাফসেঞ্চুরি (১০)